Friday, June 14, 2024
বাড়িখবররাজ্যসাংবাদিকদের পর এবার পোস্টাল ব্যালটে ভোট দিলেন ভোট কর্মীরা

সাংবাদিকদের পর এবার পোস্টাল ব্যালটে ভোট দিলেন ভোট কর্মীরা

পশ্চিম ত্রিপুরা লোকসভা নির্বাচনের জন্য ফ্যাসিলিয়েশন সেন্টারগুলিতে পোস্টাল ব্যালটের মাধ্যমে ভোট কর্মীদের ভোটগ্রহণ প্রক্রিয়া চলছে ।মঙ্গলবার রাজধানীর শিশু বিহার স্কুলের ফেসিলিয়েশন সেন্টারে ভোটের কাজে নিযুক্ত কর্মীদের ভোট গ্রহণ প্রক্রিয়া পরিদর্শনে যান রাজ্যের মুখ্য নির্বাচনী আধিকারিক পুণিত আগরওয়াল।পশ্চিম ত্রিপুরা লোকসভা কেন্দ্রের ভোটগ্রহণ আগামী ১৯ এপ্রিল অনুষ্ঠিত হবে ।আর এই ভোট গ্রহণের সাথে নিযুক্ত ভোট কর্মীদের পোস্টাল ব্যালটের মাধ্যমে ভোট গ্রহণ প্রক্রিয়ার কাজ চলছে ।সোমবার থেকে শুরু হয়েছে এই ব্যালোট ব্যাপারে ভোটগ্রহণের কাজ ।বুধবার পর্যন্ত ফেসিলিয়েশন সেন্টার গুলিতে এই কাজ চলবে। রাজ্যের সবকটি মহকুমা সদরে একটি করে এই ধরনের ফেসিলিয়েশন সেন্টার নির্মাণ করা হয়েছে ।এই সেন্টারগুলিতে চলছে ভোট কর্মীদের ভোটগ্রহণের প্রক্রিয়া। মঙ্গলবার রাজধানীর শিশু বিহার স্কুলের নির্মিত ফেসিলিয়েশন সেন্টারে ভোটের কাজে নিযুক্ত ভোট কর্মীদের ভোটগ্রহণ প্রক্রিয়া পরিদর্শন করতে যান রাজ্যের মুখ্য নির্বাচনী আধিকারিক পুণিত আগরওয়াল । তিনি বিভিন্ন বিষয়গুলি পরিদর্শন করেন ।পরিদর্শন কালে ফেসিলিয়েশন সেন্টারের বিভিন্ন বিষয় নিয়ে অসন্তোষ প্রকাশ করেন তিনি। পরে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে মুখ্য নির্বাচনী আধিকারিক পুনিত আগরওয়াল জানান, নির্বাচনের কাজে যুক্ত ভোট কর্মীদের এবং সাংবাদিকদের পোস্টাল ব্যালটে ভোটগ্রহণের কাজ চলছে ।প্রতি মহকুমায় একটি করে ফ্যাসিলিয়েশন সেন্টার করা হয়েছে ।পশ্চিম ত্রিপুরা লোকসভা কেন্দ্রের জন্য প্রায় ১২ হাজার পোস্টাল ব্যালট মঞ্জুর করা হয়েছে বলে জানান মুখ্য নির্বাচনী আধিকারিক পুণিত আগরওয়াল।এদিন সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের উত্তরে মুখ্য নির্বাচনী আধিকারিক জানান, সীমান্ত এলাকার নিরাপত্তা বজায় রাখার দায়িত্ব বিএসএফের উপর ।বিএসএফ জোয়ানরা প্রতিদিনের মতোই নির্বাচনের সময়ও সীমান্তে নিরাপত্তার দায়িত্ব পালন করে চলছেন। পাশাপাশি রাজ্য পুলিশ সীমান্ত এলাকার আইনশৃঙ্খলা রক্ষায় নিরাপত্তা বলয় সৃষ্টি করে কাজ করে চলছে। এদিন রাজ্যের মুখ্য নির্বাচনী আধিকারিক জানান , ১৬ই মার্চ থেকে রাজ্যে আদর্শ আচরন বিধি লাগু হয়েছে। সেই থেকে এখন পর্যন্ত রাজ্যে প্রায় ২৫ কোটি টাকা মূল্যের বিভিন্ন দ্রব্য উদ্ধার করা হয়েছে, ।এর মধ্যে অধিকাংশই ড্রাগস। এরপর রয়েছে বিলেতি মদ।

RELATED ARTICLES

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

- Advertisment -spot_img

জনপ্রিয় খবর

সাম্প্রতিক মন্তব্য