Sunday, April 21, 2024
বাড়িখবরশীর্ষ সংবাদপূর্ব ত্রিপুরা আসনে বিজেপি প্রার্থী কৃতি সিং দেববর্মার সমর্থনে বিশিষ্ট নাগরিকদের সাথে...

পূর্ব ত্রিপুরা আসনে বিজেপি প্রার্থী কৃতি সিং দেববর্মার সমর্থনে বিশিষ্ট নাগরিকদের সাথে মতবিনিময় সভায় রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী

গোটা ত্রিপুরা রাজ্যে এই সময়ের মধ্যে শাসক বিজেপি দল আসন্ন নির্বাচনে নিজেদের বিজয়কে সুনিশ্চিত করার জন্য রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী প্রফেসর ডঃ মানিক সাহার নেতৃত্বে দুর্বার গতিতে এগিয়ে চলেছে। পূর্ব থেকে পশ্চিম কিংবা রামনগরের উপনির্বাচন সব ক্ষেত্রেই বিজেপি এই সময়ের মধ্যে রকমারি প্রচার কর্মসূচিতে ব্যাপক সাড়া তৈরি করে চলেছে। এরই অঙ্গ হিসাবে আজ পূর্ব ত্রিপুরা আসনে বিজেপি প্রার্থী কৃতি সিং দেববর্মার সমর্থনে বিশিষ্ট নাগরিকদের সাথে মতবিনিময় সভায় মিলিত হন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী সহ অন্যান্য বিশিষ্ট ব্যক্তিত্বরা। ছিলেন রাজ্য মন্ত্রিসভার সদস্য অনিমেষ দেববর্মা ,টিংকু রায় সহ পূর্ব ত্রিপুরা আসনের বিজেপি মনোনীত প্রার্থী কৃতি সিঙ্গ দেববর্মা নিজে। নিজের আলোচনায় অংশগ্রহণ করে মুখ্যমন্ত্রী প্রফেসর ডঃ মানিক সাহা প্রথমেই যেভাবে ধৈর্যের সাথে কল্যাণপুরের মানুষ আজকের এই সভায় উপস্থিত থেকেছেন, নিজেদের ধৈর্যের প্রমাণ দিয়েছেন তার জন্য সকলের প্রতি কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করেন। আগামি নির্বাচনে পূর্ব ত্রিপুরা আসনে বিজেপি মনোনীত প্রার্থীকে জয়ী করার আহ্বান জানিয়ে মুখ্যমন্ত্রীর বক্তব্য হচ্ছে ৭০ এর দশক থেকে শুরু করে ৩৫ বছর বামেরা এবং একটা সময়ে কংগ্রেস রাজ্যটাকে শেষ করে দিয়েছে। মুখ্যমন্ত্রীর বক্তব্য হচ্ছে একটা সময় ত্রিপুরা রাজ্য মানেই ছিল আতঙ্ক, একটা সময় ত্রিপুরা রাজ্য মানেই ছিল হিংসার আশ্রয় গ্রহণ করে সংখ্যার জুড়ে ক্ষমতায় টিকে থাকা। মুখ্যমন্ত্রী স্পষ্ট ভাষায় দাবি করেন ২০১৮ সালে এ রাজ্যে সরকার পরিবর্তন হওয়ার পর মানুষের ইচ্ছার প্রতি সম্মান জানিয়ে বর্তমান সরকার ক্রমান্বয়ে উন্নয়নের কর্মযজ্ঞ অব্যাহত রেখে চলেছে। মুখ্যমন্ত্রী দাবি করেন, এই সময়ের মধ্যে মথা বিজেপির সাথে যুক্ত হয়ে যাওয়ায় উন্নয়নের গতিকে আরো বেশি ত্বরান্বিত করা যাবে। পাশাপাশি কল্যানপুরের আজকের এই আয়োজন থেকে মুখ্যমন্ত্রীর দৃঢ় আত্মবিশ্বাস আগামী নির্বাচনে পূর্ব এবং পশ্চিম উভয় আসনেই বিজেপি দলের জয় শুধুমাত্র সময়ের অপেক্ষা। পাশাপাশি এদিন কল্যাণপুরে দাঁড়িয়ে মুখ্যমন্ত্রী দাবি করেন প্রতিশ্রুতি মতো বিগত বিধানসভা নির্বাচনে শান্তিপূর্ণভাবে এবং নির্ভীগ্নে তথা সাইন্টিফিক রেগিং বাদে নির্বাচন করে দেখিয়ে দিয়েছে বিজেপি দল।
নিজের আলোচনায় অংশগ্রহণ করে রাজ্যের মন্ত্রী অনিমেষ দেববর্মা দাবী করেন কল্যাণপুরের মানুষ কখনোই ১৯৯৭ বা সমসাময়িক সময়ের সন্ত্রাসবাদের ঘটনাগুলো কখনোই ভুলতে পারবে না। অনিমেষ দেববর্মার স্পষ্ট বক্তব্য হচ্ছে বিভাজনের রাজনীতি করতে করতে কমিউনিস্টরা গোটা রাজ্যটাকে ধ্বংস করে দিয়েছে, তবে আগামী দিনে বিজেপির নেতৃত্বেই উন্নয়ন সুনিশ্চিত এমন দাবি করলেন সদ্য বিজেপিতে যোগ দেওয়া বা যুক্ত হওয়া অনিমেষ বাবু।
নিজের আলোচনার মধ্য দিয়ে রাজ্যের সমাজ কল্যাণ এবং সমাজ শিক্ষা দপ্তরের মন্ত্রী টিঙ্কু রায় আগামী নির্বাচনে বিজেপি প্রার্থীকে জয়ী করার আহ্বান জানানোর পাশাপাশি দাবি করেন এক সময়ে যারা কমিউনিস্ট করত তারাও কমিউনিস্টদের ঘৃণ্য রাজনীতির কারণে ভাতা সহ বিভিন্ন প্রকারের সামাজিক সুযোগ থেকে বঞ্চিত হত। তবে বর্তমানে সরকার প্রকৃত অর্থে সবকা সাথ, সবকা বিশ্বাসের নীতিতে ভিত্তি করে কাজ করে চলেছে বলে টিংকু রায় দাবি করেন।
সংক্ষিপ্ত পরিসরে আলোচনা করতে গিয়ে প্রার্থী কৃতি সিং উপস্থিত সকলের কাছে আশীর্বাদ প্রত্যাশা করে আগামী দিনে কাজ করার সুযোগ দাবি করেন।
কল্যাণপুরের লোটাস কমিউনিটি হলে আজকের এই মতবিনিময় সভা ঘিরে উপস্থিত সকলের মধ্যে দারুন উৎসাহ পরিলক্ষিত হয়। তবে বিদ্যুৎ যন্ত্রণায় নাকাল হতে হয়েছে সকলকেই। বিশেষ করে যেভাবে মুখ্যমন্ত্রীর সভায় এভাবে বিদ্যুৎ যন্ত্রণা তৈরি হয়েছে তা নিয়ে একরাশ প্রশ্ন চিহ্নও তৈরি হয়েছে।

RELATED ARTICLES

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

- Advertisment -spot_img

জনপ্রিয় খবর

সাম্প্রতিক মন্তব্য