Thursday, May 30, 2024
বাড়িখবররাজ্যউৎসবের আগে চরম আর্থিক সংকটের সম্মুখীন শ্রমিক কর্মচারীরা এমনটাই অভিযোগ এনে শ্রমিক...

উৎসবের আগে চরম আর্থিক সংকটের সম্মুখীন শ্রমিক কর্মচারীরা এমনটাই অভিযোগ এনে শ্রমিক কর্মচারীদের ন্যায্য পাওনা মিটিয়ে দিতে প্রয়োজনীয় উদ্যোগ গ্রহণ করার দাবি মুখ্যমন্ত্রী ও সরকারের নিকট সি আই টি ইউর

সামনেই শারদীয়া দুর্গোৎসব। যে উৎসবকে ঘিরে সর্বত্র চলছে এখন জোরদার প্রস্তুতি। রাজ্যের সর্ববৃহতি উৎসবে পরিবার পরিজনদের নিয়ে আনন্দ উপভোগ করার জন্য সরকারি কিংবা বেসরকারি স্তরে কর্মরত কর্মচারীরা পেয়ে থাকেন পূজা বোনাস ও আগ্রিসিয়া। সরকারি কর্মচারীদের একটা বড় অংশ ইতিমধ্যেই ঘোষিত বোনাস এগ্রিসিয়া হাতে পেয়ে গেলেও, সরকারি প্রতিষ্ঠানগুলোতে কর্মরত শ্রমিক কর্মচারীদের একটা বড় অংশ এখনো তা থেকে বঞ্চিত।পূজায় বোনাস ও এগ্রিসিয়া শ্রমিক কর্মচারীদের ন্যায্য প্রাপ্য। অথচ পুজো আর কয়েকদিন বাকি থাকলেও এখনো পর্যন্ত বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানগুলোতে কর্মরত শ্রমিক কর্মচারীরা তাদের ন্যায্য প্রাপ্য থেকে বঞ্চিত।ফলে স্বাভাবিকভাবেই চরম আর্থিক সংকটে ভুগছেন শ্রমিক কর্মচারীদের একটা বড় অংশ। শুক্রবার আগরতলায় সি আই টি ইউ কার্যালয়ে আয়োজিত এক সাংবাদিক সম্মেলনে এমনটাই অভিযোগ করলেন রাজ্য সভাপতি মানিক দে ও সম্পাদক শংকর প্রসাদ দত্ত। সাংবাদিক সম্মেলনে তারা অভিযোগ করেন বেসরকারি প্রতিষ্ঠানগুলোতে কর্মরত শ্রমিক কর্মচারীদের বোনাস ও এগ্রিসিয়া প্রদানে এই তালবাহানা জন্য দায়ী শ্রম দপ্তর। তাদের নমনীয় মনোভাবের কারণেই ন্যায্য পাওনা থেকে বঞ্চিত হতে চলেছে শ্রমিক কর্মচারীরা। সিআইটিইউ বেশ কিছুদিন ধরেই বিষয়টি নিয়ে সোচ্চার হয়। এমনকি শ্রম দপ্তরে বেশ কয়েকবার ডেপুটেশনেও প্রদান করা হয়। এতে কিছু কিছু ক্ষেত্রে শ্রমিক কর্মচারীদের আর্থিক সুবিধা হলেও অধিকাংশ ক্ষেত্রেই নীট ফল শূন্য। শ্রম দপ্তর সঠিক পদক্ষেপ গ্রহণ না করার ফলেই এই পরিস্থিতি সৃষ্টি। তাই সিআইটিইউ দাবি করছে রাজ্যের শ্রমিক কর্মচারীদের ন্যায্য পাওনা মিটিয়ে দেওয়ার জন্য প্রশাসন তথা রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী হস্তক্ষেপের। একই সাথে সংগঠন দাবি করে যারা এখনো শ্রমিকদের ন্যায্য দাবি মিটিয়ে দেয়নি তাদের বিরুদ্ধে আইননুগ ব্যবস্থা গ্রহণের।

RELATED ARTICLES

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

- Advertisment -spot_img

জনপ্রিয় খবর

সাম্প্রতিক মন্তব্য