Tuesday, February 27, 2024
বাড়িখবররাজ্যজিবিতে চলন্ত লিফট আটকে পরলেন মুখ্যমন্ত্রীর দেহরক্ষীসহ বিশিষ্ট চিকিৎসকরা, মুখ্যমন্ত্রীর উপস্থিতিতে জনসম্মুখে...

জিবিতে চলন্ত লিফট আটকে পরলেন মুখ্যমন্ত্রীর দেহরক্ষীসহ বিশিষ্ট চিকিৎসকরা, মুখ্যমন্ত্রীর উপস্থিতিতে জনসম্মুখে ফুটে উঠলো জিবি হাসপাতালের বেআব্রু চেহারা

রাজ্যের একটা বৃহৎ অংশের মানুষের স্বাস্থ্যপরিসেবার অন্যতম ঠিকানা হলো আগরতলা জিবি হাসপাতাল। প্রতিদিন রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে সাধারণ মানুষ নানান রোগে আক্রান্ত হয়ে চিকিৎসা পরিষেবা নিতে ছুটে আসেন এই হাসপাতালে। হাসপাতালের পরিষেবা থেকে শুরু করে পরিকাঠামো নিয়ে অনেকের মুখেই প্রায় সময় শোনা যায় গুনগান। অথচ বাস্তব চিত্র কিন্তু ভিন্ন কথায় বলে। প্রধান সরকারি হাসপাতালে চিকিৎসা পরিষেবা নিতে এসে প্রতিনিয়ত সাধারণ মানুষ নানা অভিজ্ঞতার সম্মুখীন। এর মধ্যেই ইদানিংকালে যেন জিবি হাসপাতালের পরিকাঠামো নিয়ে একের পর এক উঠছে অভিযোগ। বিদ্যুৎ বিভ্রাট, চুরি ছিনতাইয়ের ঘটনা এখন জিবি হাসপাতালে নিত্যনৈমিত্তিক বিষয় হয়ে দাঁড়িয়েছে।এর মধ্যে আবার নতুন করে সংযোজন হলো চলন্ত লিফট মাঝপথে থমকে দাঁড়ানো। এরকম একাধিক ঘটনার সম্মুখীন হয়ে তিক্ত অভিজ্ঞতা নিয়েই প্রতিনিয়ত বাড়ি ফিরছেন চিকিৎসা পরিষেবা নিতে আসা লোকজন। এবার এমনই এক অভিজ্ঞতার সাক্ষী থাকলেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী তথা স্বাস্থ্যমন্ত্রীর দেহরক্ষীরা সহ বিশিষ্ট চিকিৎসকরা। ঘটনা বুধবার বিকেলে। এদিন জিবি হাসপাতালে ছিল পূর্ব নির্ধারিত মুখ্যমন্ত্রীর অনুষ্ঠান। আর এই অনুষ্ঠানে অংশ নিতে যথারীতি উপস্থিত হন মুখ্যমন্ত্রী। লিফটে চড়ে মুখ্যমন্ত্রী যথারীতি ভাবে অনুষ্ঠানস্থলে পৌঁছানোর পরেই দেখা দেয় বিপত্তি। মুখ্যমন্ত্রীর দেহরক্ষী সহ রাজ্যের বিশিষ্ট চিকিৎসক প্রদীপ ভৌমিকসহ আরো বেশ কয়েকজন চিকিৎসক যখন লিফটে চড়েই অনুষ্ঠানস্থলে রওনা দেন, ঠিক তখনই মাঝপথে থমকে দাঁড়ায় চলন্ত লিফট।এতে করে স্বাভাবিকভাবেই আতঙ্কগ্রস্থ হয়ে পড়েন লিফটে থাকা মুখ্যমন্ত্রী দেহরক্ষী থেকে শুরু করে চিকিৎসকরা।যদিও পরবর্তী সময়ে অক্ষত অবস্থাতেই উদ্ধার করা হয় তাদের। মাত্র দুদিন আগে অনুরূপ ঘটনার সাক্ষী থাকেন হাসপাতালে চিকিৎসা পরিষেবা নিতে আসা সাধারণ রোগী ও তাদের প্রয়োজনরা। গতদিনের ঘটনার রেশ কেটে না উঠতেই ফের আরো একবার চলন্ত লিফট মাঝপথে থেমে পড়ল। আর এবারের ঘটনায় সাক্ষী রইলেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী তথা স্বাস্থ্য মন্ত্রীর দেহরক্ষীরা সহ বিশিষ্ট চিকিৎসকরা। এদিনের এই ঘটনায় স্বাভাবিকভাবেই চাঞ্চল্য দেখা দেয় সাধারণের মধ্যে। একই সাথে এই ঘটনায় ফের আরো একবার প্রশ্ন উঠতে শুরু করলো রাজ্যের প্রধান সরকারের রেফারেল হাসপাতালের পরিকাঠামো নিয়ে। জিবি হাসপাতালে লিফট অচল হয়ে পড়ার ঘটনা নতুন কিছু নয়। অতীতে এরকম ঘটনা বেশ কয়েকবার সংঘটিত। এরপরেও শিক্ষা নেয়নি হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ থেকে শুরু করে দপ্তর। এবার খোদ স্বাস্থ্য মন্ত্রীর নিরাপত্তার কাজে নিযুক্ত দেহরক্ষীরা জীবনের ঝুঁকির মুখে পড়লেন। হয়তোবা বড় ধরনের কোন অঘটন হয়ে যেতে পারতো এদিন। এখন দেখার বিষয় এই ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে স্বাস্থ্যমন্ত্রী সহ হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ ঘন ঘন লিফট অচল হয়ে পড়ার ঘটনায় কি ধরনের পদক্ষেপ গ্রহণ করেন। তার দিকেই এখন তাকিয়ে গোটা রাজ্যবাসী।

RELATED ARTICLES

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

- Advertisment -spot_img

জনপ্রিয় খবর

সাম্প্রতিক মন্তব্য